মৃত্যু

মৃত্যুর হাতে থেকে কেউ নিস্তার পাবে না। অবশেষে মৃতু আত্মহত্যা করবে। 

বর্তমান বিশ্বে মানুষের সংখ্যা বেড়ে মারাত্মক মাত্রায় পৌঁছেছে। এক মুঠ খাবারের জন্য মানুষ মানুষ খুন করে, গর্ভাশয় ভাড়া দেয়, বীর্য বিক্রি করে। সম্পদশালী হওয়ার জন্য শিশুকে অপহরণ করে দাসত্ব, জোরপূর্বক শ্রম এবং শোষণের উদ্দেশ্যে পাচার করে। জনপ্রিয়তার জন্য কিছু মানুষ যাচ্ছেতাই করে এবং তাদের অপকর্ম অনেকের মৃত্যুর কারণ হয়। অন্যায় এখন এত জনপ্রিয় হয়েছে যে কাকতালীয় ন্যায় পর্যন্ত রহিত হচ্ছে। ভুখ লাগলে আমরা কী খাই তা জানার দিন ফুরিয়েছে। কোথাও কেউ খাবার খেয়ে মরছে অন্য কোথায় কেউ খবারের অভাবে মরছে। জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণের জন্য কেউ কিছু করছে না। ওরা বলে জনসংখ্যা বাড়লে দেশের জনশক্তি বাড়ে। আমার প্রশ্ন হলো, এমন শক্তি দিয়ে কী করবে যে শক্তি নিজেই নিজের মৃত্যুর কারণ?

আল্লাহ কী বলেছেন একটু খেয়াল করে পড়লে অনেক প্রশ্নের উত্তর মিলবে…

সূরাঃ আন-নাহাল ৬১. আর আল্লাহ যদি মানুষকে তাদের সীমালংঘনের জন্য শাস্তি দিতেন তবে ভূপৃষ্ঠে কোন জীব-জন্তুকেই রেহাই দিতেন না(১); কিন্তু তিনি এক নির্দিষ্ট কাল পর্যন্ত তাদেরকে অবকাশ দিয়ে থাকেন। অতঃপর যখন তাদের সময় আসে তখন তারা মুহুর্তকাল আগাতে বা পিছাতে পারে না।

এই লেখা পড়ে অনেকে হাসবে আর বলবে গুজব ছড়ানোর জন্য আরেক উজবুক এসেছে।

© Mohammed Abdulhaque

উপন্যাস সমগ্র

Leave a Reply

Please log in using one of these methods to post your comment:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google photo

You are commenting using your Google account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s